ক্যাপাসিটর কি এবং বিস্তারিত আলোচনা ও কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন

2
2274
ক্যাপাসিটর কি

ক্যাপাসিটর একটি ইংরেজি শব্দ যার বাংলা অর্থ হলো ধারক। ক্যাপাসিটর কি তার উত্তর বলতে গেলে প্রথমে বলতে হবে এটি একটি বৈদ্যুতিক যন্ত্রাংশ যা দুটি পরিবাহী পাতের মাঝে একটি ডাই-ইলেক্ট্রিক অপরিবাহী পদার্থ নিয়ে গঠিত। এটি বহুল ব্যবহিত একটি যন্ত্রাংশ। আজকের এই লেখাতে যে যে বিষয় থাকবে?

আমাদের জনপ্রিয় লেখা বৈদ্যুতিক মোটর সম্বন্ধে পড়তে এখানে ক্লিক করুন।

  1. ক্যাপাসিটর কি ধারক কাকে বলে?
  2. প্রতীক, এ্কক
  3. ক্যাপাসিট্যান্স, সূত্র
  4. প্রকারভেদ
  5. ইলেক্ট্রোলাইটিক ক্যাপাসিটর
  6. সিরামিক ক্যাপাসিটর
  7. ভ্যারিয়েবল ক্যাপাসিটর বা পরিবর্তনশীল ক্যাপাসিটর
  8. ক্যাপাসিটর নিয়ে কিছু সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন
  9. পরিশেষে কিছু কথা

ক্যাপাসিটর কি বা ধারক কাকে বলে?

ক্যাপাসিটর বা ধারক যদি সাধারন ভাষায় বলতে হয় তাহলে এটি অনেকটা রি- চার্জএবল ব্যাটারির সাথে তুলনা করা যায়। এর চার্জ ধরে রাখার ক্ষমতা অনেক কম।

পাঠ্য-পুস্তক এর ভাষায় এটি এমন একটি বৈদ্যুতিক যন্ত্র যা দুটি পরিবাহী পাতের মাঝে ডাই-ইলেক্ট্রিক অপরিবাহী পদার্থ নিয়ে গঠিত

প্রতীক, একক, চার্জঃ

ক্যাপাসিটর এর প্রতীক

ক্যাপাসিটর কি

ক্যাপাসিটরের এস আই একক ফ্যারাড(F)। ফ্যারাড অনেক বড় হওয়ার কারনে এক প্রয়োজন মতো মাইক্রোফ্যারাড (µF), পিকো-ফ্যারাড(PF) এবং ন্যানো ফ্যারাড (nF)প্রকাশ করা হয়ে থাকে

ক্যাপাসিট্যান্সঃ

ক্যাপাসিটরের বৈদ্যুতিক এনার্জি বা চার্জ সঞ্চয় করার ধর্ম কে ক্যাপাসিট্যান্স বলে। ক্যাপাসিটরের মাজখানে প্লেট এর মাঝে যখন পটেনশিয়াল পার্থক্য থাকে তখন তাকে ক্যাপাসিটর চার্জ অবস্থায় থাকে এবং যখন পটেনশিয়াল পার্থক্য থাকে না তখন ডিসচার্জ অবস্থায় থাকে।

ক্যাপাসিট্যান্স=C, চার্জ=Q, পটেনশিয়াল ডিফারেন্স=V,  C=Q/V

প্রকারভেদঃ

ইলেক্ট্রোলাইটিক ক্যাপাসিটর

এটি উচ্চ ধারকত্ব একটি ক্যাপাসিটর যেটির ধারক সবচেয়ে বেশি ব্যবহিত হয়। এটি মূলত রেডিও-র ফিল্টার বাইপাস সার্কিটে ব্যবহিত হলেও AC সার্কিটে ব্যবহার করা যায় না।ক্যাপাসিটর কি

সিরামিক ক্যাপাসিটর

এর ধারকত্ব অনেক কম। এটি মূলত ১ pF থেকে ১০০০pF এবং এর সর্বোচ্চ সহনীয় ক্ষমতা ৫০০ ভোল্ট পর্যন্ত।

ক্যাপাসিটর কি

ভ্যারিয়েবল ক্যাপাসিটর বা পরিবর্তনশীল ক্যাপাসিটর

এই ক্যাপাসিটরের মান প্রয়োজনমত কমানো বা বাড়ানো যায়। এই ধরনের ক্যাপাসিটর একের অধিক মুভিং প্লেটের সমন্বয়ে গঠিত। প্লেটের অবস্থান পরিবর্তন করে এর মান কমানো বা বাড়ানো যায়। এই ধরনের ক্যাপাসিটর রেডিও টিউনে ব্যবহিত হয়।

ক্যাপাসিটর কি

ক্যাপাসিটর নিয়ে কিছু সংক্ষিপ্ত প্রশ্নঃ

ক্যাপাসিটর ইলেকট্রিক্যাল এবং ইলেক্ট্রনিক্স এর অনেক গুরুত্বপূর্ণ একটি কম্পোনেন্ট। ইলেক্ট্রনিক্স এর বেশিরভাগ প্রজেক্ট তৈরি করার ক্ষেত্রে ক্যাপাসিটর প্রয়োজন পরে।

ক্যাপাসিটর বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন আছে যেগুলো চাকুরির ভাইবা বা লিখিত পরিক্ষা আসতে পারে। এমন সব সম্ভাব্য প্রশ্ন গুলো আজ তুলে ধরবো।

  1. ক্যাপাসিটর কাকে বলে?

এর বাংলা অর্থ ধারক যা মূলত বৈদ্যুতিক চার্জ সঞ্চয় করে রাখে ক্ষণিকের জন্য।

  1. সার্কিটে ক্যাপাসিটরের কি ভূমিকা?

ক্ষণিকের জন্য চার্জ ধরে রাখে। এটাকে সহজভাবে ব্যাটারির সাথে তুলনা করা যেতে পারে। ব্যাটারি দীর্ঘ সময়ের জন্য চার্জ ধরে রাখতে পারে। এটা সাধারণত ফিল্টারিং ও করে থাকে।

  1. পাওয়ার সাপ্লাইতে কি ধরনের ক্যাপাসিটর ব্যবহার করা হয়ে থাকে?

পাওয়ার সাপ্লাইতে অবশ্যই ভালো মানের ক্যাপাসিটর ব্যবহার করা উচিত। যেহেতু পাওয়ার সাপ্লাই উপর নির্ভর করে কম্পোনেন্ট গুলো কাজ করবে সেহেতু অবশ্যই ভালো মানের ক্যাপাসিটর পাওয়ার সাপ্লাই এর সাথে সংযুক্ত করা উচিত।

সার্কিটের উপর নির্ভর করে ক্যাপাসিটর ভোল্টেজ ব্যবহার করা হয়ে থাকে। যদি কোন সার্কিটে ক্যাপাসিটরের মান দেওয়া না থাকে তাহলে সার্কিটের সাপ্লাই ভোল্টেজের মানকে স্থির ধরে ক্যাপাসিটরের ভোল্ট ধরতে হবে। ক্যাপাসিটরের ভোল্টেজ সাপ্লাই ভোল্টেজের চেয়ে যেন বেশি না হয়।

  1. ক্যাপাসিটরের পি এফ মান কীভাবে নির্ণয় করবো?

পি এফ ক্যাপাসিটরের মান গুলোকে কোডের মাধ্যমে প্রকাশ করা হয়।

যেমন:

১০১ এর অর্থ এটির মান ১০০ পি এফ

১০২ এর অর্থ এটি ১০০০ পি এফ বা ১ ন্যানো ফ্যারাড মানের এভাবে

১০৫ এর অর্থ হচ্ছে ১০০০০০০ বা এটি ১ মাইক্রোফ্যারাড

তার মানে ৩য় ঘরে যত মান দেওয়া থাকবে ঠিক ততগুলি শুন্য হবে। এতে পি এফ ক্যাপাসিটরের মান পাওয়া যাবে এবং পরবর্তীতে ন্যানো, মাইক্রো ফ্যারাডে পরিবর্তন করে নিলেই এর ব্যবহারিক মান বের হবে।

আমাদের জনপ্রিয় লেখা বৈদ্যুতিক মোটর সম্বন্ধে পড়তে এখানে ক্লিক করুন।

পরিশেষে কিছু কথাঃ

ক্যাপাসিটর অনেক গুরত্বপূর্ণ একটি কম্পোনেন্ট। ক্যাপাসিটর কি এর সম্পর্কে হয়তো অনেক কিছুই আছে যা লিখে শেষ করা সম্ভব না। আপনাদের যদি কোন ক্যাপাসিটর সম্পর্কিত প্রশ্ন থাকে তাহলে কমেন্ট করুন অথবা লাইভে মেসেজ দিন অথবা ফেসবুকে ও মেসেজ করতে পারেন।

2 COMMENTS

    • ক্যাপাসিটর সাধারণত বিভিন্ন কাজে ব্যবহার করা হয়ে থাকে। ক্যাপাসিটর সাধারণত কোনো ইলেকট্রিকাল কিংবা ইলেকট্রনিক্স সার্কিটে যুক্ত হয় ও বৈদ্যুতিক চার্জ সঞ্চিত করে। আবার সার্কিটের প্রয়োজনে উক্ত জমাকৃত চার্জ বাধা প্রদান করে। পাওয়ার ফ্যাক্টর কারেকশনের জন্য ক্যাপাসিটর ব্যবহার করা হয়। বেশিরভাগ ইলেকট্রনিক্স ডিভাইসে সোর্সের সাথে ক্যাপাসিটর প্যারালালে সংযুক্ত করা থাকে।

LEAVE A REPLY