ম্যাগনেটিক কন্টাক্টর নিয়ে সহজ এবং সংক্ষিপ্ত আলোচনা | পর্ব-২

0
559

ম্যাগনেটিক কন্টাক্টর নিয়ে গত পর্বে আপনাদের সাথে তার পরিচিতি, পাওয়ার রেঞ্জ ইত্যাদি নিয়ে আলাপ করেছিলাম। এই পর্বে আমরা ম্যাগনেটিক কন্টাক্টরের গঠন এবং কার্যপ্রণালী নিয়ে আলাপ করব। চলুন শুরু করা যাক।

ম্যাগনেটিক কন্টাক্টরের গঠনপ্রণালী

ম্যাগনেটিক কন্টাক্টর কিভাবে কাজ করে এ ব্যাপারে জানার আগে তার গঠন জেনে নেয়াটা আবশ্যক। চলুন খুব সংক্ষেপে আমরা ম্যাগনেটিক কন্টাক্টরের গঠনপ্রণালী জেনে আসি।

ম্যাগনেটিক কন্টাক্টরের গঠনপ্রণালী রিলের মতই। তাই আশা করি বুঝতে সমস্যা হবেনা। নিম্নে গঠনপ্রণালী উল্লেখ করা হল:

কন্টাক্টর কয়েল:

ইনপুটের তিনটা টার্মিনালের মাঝে একটা টার্মিনাল হচ্ছে কন্টাক্টর কয়েল, কন্টাক্টর কয়েলের দুইটা প্রান্ত থাকে যেখানে পাওয়ার সাপ্লাই দেয়ার পরে ইলেকট্রোম্যাগনেটিক ফিল্ড সৃষ্টি হয়। A1 এবং A2 দিয়ে এই দুইটা প্রান্ত বোঝানো হয় (নিচের চিত্রে দেখানো হলো)।

মেইন টার্মিনাল :

সাধারনত ম্যাগনেটিক কন্টাক্টরের দুই পাশে মেইন টার্মিনাল থাকে। একপাশে ইনপুট টার্মিনাল আর আরেক পাশে আউটপুট টার্মিনাল থাকে। এটার তিনটা ইনপুট টার্মিনাল আর তিনটা আউটপুট টার্মিনাল থাকে। ইনপুট টার্মিনাল তিনটাকে L1, L2, L3 দ্বারা বোঝানো হয় আর অউটপুট টার্মিনাল তিনটাকে T1, T2, T3 দ্বারা বোঝানো হয় । ইলেকট্রিক্যাল ওয়্যারিং এর সময় আমাদের দেশে ইনপুট টার্মিনাল উপরের দিকে আর আউটপুট টার্মিনাল নীচের দিকে সংযোগ করা হয়।

অক্সিলারি টার্মিনাল :

অক্সিলারি টার্মিনালে দুই ধরনের কন্টাক্ট থাকে, সেগুলা হল নরমালি ওপেন (NO) এবং নরমালি ক্লোজ (NC)।

ম্যাগনেটিক কন্টাক্টর কিভাবে কাজ করে?

এবার আমরা জেনে নিব তার কার্যপ্রণালী। চলুন দেখে নেয়া যাকঃ

ম্যাগনেটিক কন্টাক্টরের গঠন
ম্যাগনেটিক কন্টাক্টরের গঠন

সাধারণত যখন ম্যাগনেটিক কন্টাক্টরে পাওয়ার সরবরাহ করা হয় তখন এটার ভেতরে ম্যাগনেটিক ফিল্ড তৈরি হয় এবং এই ম্যাগনেটিক ফিল্ড মুভিং কোর আর ফিক্সড কোরের মাঝে মুভিং কোরকে আকর্ষণ করা শুরু করে দেয়। ম্যাগনেটিক ফিল্ডের এই আকর্ষণ মুভিং কোরকে এনার্জাইসড করতে থাকে, একটা সময় মুভিং কোর আর ফিক্সড কোরের মাঝে শর্ট সার্কিট হয়ে যায়। তখন নরমালি ওপেন কন্টাক্ট ক্লোজ হয়ে যায়।

সাপ্লাই এর শুরুতে আর্মেচার কয়েলের ভিতর দিয়ে বেশি কারেন্ট প্রবাহিত হলেও একটু পরেই কারেন্ট প্রবাহের মাত্রা কমে যায়। একটা পর্যায়ে গিয়ে যখন কারেন্ট প্রবাহ বন্ধ হয়ে যায় তখন কয়েল ডি-এনার্জাইসড হয় এবং নরমালি ক্লোজ কন্টাক্ট ওপেন হয়ে যায়। ব্যাপারটি সত্যিই অনেক মজার। এভাবে সরবরাহের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত যেতে ম্যাগনেটিক কন্টাক্টরের সময় প্রয়োজন হয় মেক্সিমাম দুই থেকে তিন সেকেন্ড।

আরো কিছু পোস্ট

ম্যাগনেটিক কন্টাক্টর নিয়ে সহজ এবং সংক্ষিপ্ত আলোচনা | পর্ব-১

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here