Home ইলেকট্রনিক্স (Pro) ইলেকট্রনিক্স ডিজিটাল অসিলোস্কোপ নিয়ে সহজ এবং সংক্ষিপ্ত আলোচনা

ডিজিটাল অসিলোস্কোপ নিয়ে সহজ এবং সংক্ষিপ্ত আলোচনা

0
327

ডায়নামিক ইলেকট্রিসিটি নিয়ে পড়াশোনা করার পর থেকেই আমার ভোল্টেজ কারেন্টের ডায়নামিক ফেজ দেখার অনেক ইচ্ছা জাগল। অসিলোস্কোপ নিয়ে ধারণা পাই ইউনিভার্সিটি লাইফে। অসিলোস্কোপের সাহায্যে আমরা এসি ভোল্টেজ এবং কারেন্টের এমপ্লিচুড, ফেজ, টাইম পিরিয়ড ইত্যাদি সম্পর্কে ধারণা পেয়ে থাকি। চলুন আজ সহজ এবং সংক্ষিপ্তভাবে একটি ডিজিটাল অসিলোস্কোপ নিয়ে আলোচনা করব।

ডিজিটাল অসিলোস্কোপ কি?

ডিজিটাল স্টোরেজ Oscilloscope বা DSO এমন একটি ডিভাইস যা ভোল্টেজ এবং কারেন্টের waveforms দেখতে সাহায্য করে। তাছাড়াও এটি তার ডিজিটাল স্টোরেজ ইউনিট বা মেমরিতে একটি ডিজিটাল বিন্যাসে waveforms সংরক্ষণ করতে সাহায্য করে। ডিজিটাল স্টোরেজ অসিলোস্কোপ অ্যানালগ ইনপুট সিগন্যাল গ্রহণ করে এবং এটি তার মেমোরিতে সংরক্ষণ করে। অতঃপর তা মেমোরি থেকে ডিজিটাল ডাটা সংগ্রহ করে তা মনিটরে প্রদর্শন করে।

ডিজিটাল অসিলোস্কোপ কি কি অংশ নিয়ে গঠিত?

ডিজিটাল অসিলোস্কোপ নিম্নলিখিত অংশগুলো নিয়ে গঠিত। যথাঃ

  • A/D and D/A converter
  • Memory
  • Logic Control Circuit
  • Amplifier
  • Time Base Circuit
  • Cathode Ray Tube

ডিজিটাল অসিলোস্কোপ কিভাবে কাজ করে?

ডিজিটাল অসিলোস্কোপ
ডিজিটাল অসিলোস্কোপ এর কার্যপদ্ধতি

আমরা জানি যে ডিজিটাল অসিলোস্কোপ এনালগ সিগন্যাল আকারে সিগন্যাল গ্রহণ করে। সুতরাং, সর্বোপরি, এটি অ্যানালগ সিগন্যাল গ্রহণ করে তাকে এমপ্লিফাই করে। এমপ্লিফিকেশন এবং নয়েজ ফিল্টার করার পর করার পরে এটি এনালগ টু ডিজিটাল সিগন্যাল কনভার্টিং প্রসেস শুরু করে। স্যাম্পলিং রেটের উপর ভিত্তি করে তা বিভিন্ন ফ্রিকুয়েন্সির সিগন্যাল তৈরি করতে সক্ষম।

কন্ট্রোল লজিক সার্কিট

এটি পুরো সার্কিটের একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অংশ। এটি অসিলোস্কোপের লজিক ফাংশন নিয়ন্ত্রণ করে। এটি ক্লক পালস এবং ট্রিগার পালস নিয়ন্ত্রণ করে। অতঃপর এটি টাইম বেস সার্কিটে আউটপুট প্রদান করে।

ডিজিটাল টু এনালগ কনভার্টার

ওয়েবফর্ম ডিসপ্লে এবং সিগন্যাল এনালাইসিস করাই হচ্ছে এই অংশের মূল কাজ। মেমোরিতে থাকা বাইনারি বা ডিজিটাল সিগন্যাল এই অংশে এনালগ সিগন্যালে রুপান্তরিত হয়ে থাকে।

ওয়েবফরম তৈরি

মেমোরিতে স্টোর থাকা ডিজিটাল সিগন্যাল এনালগ সিগন্যাল রুপান্তরিত হয়। এ প্রক্রিয়ায় ইন্টারপোলেশনের সাহায্যে ওয়েবফর্ম শেপিং হয়ে থাকে। এক্ষেত্রে ইন্টারপোলেশন দুই ধরনের হতে পারে। যথাঃ

  • লিনিয়ার ইন্টারপোলেশন
  • সাইনোসোইডাল ইন্টারপোলেশন

লিনিয়ার ইন্টারপোলেশনের সাহায্যে সাধারণত স্কয়ার, ট্রায়াংগেল শেপের ওয়েবফর্ম প্রদর্শন করা হয়। আর সাইনোসোইডাল ইন্টারপোলেশনের সাহায্যে সাধারণত সাইন ওয়েভ প্রদর্শন করা হয়।

ক্যাথোড রে টিউব/CRT

ক্যাথোড রে টিউবে দুই ধরনের প্লেট থাকে। যথাঃ

  • Horizontal Plate
  • Vertical Plate

horizontal plate সাধারণত Horizontal amplifier এর সাথে এবং Vertical Plate সাধারণত Vertical Amplifier এর সাথে যুক্ত থাকে।

আরো কিছু আর্টিকেল পড়ুন

ডিজিটাল ইলেকট্রনিক্স জগতের দোভাষী মহাশয়। কে এই দোভাষী?

গল্পে গল্পে ইলেকট্রনিক্স ফ্যামিলির পরিচিতি

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

error: Content is protected !!