দুটি পোলের পরিবাহীর মধ্যে স্যাগ নির্ণয় | পাহাড়, বরফ এবং বাতাসের প্রভাব বিবেচনায়

0
290

জাবেদ এবং রহিম ঠিক করল তারা বান্দরবান বেড়াতে যাবে। ত যে কথা সেই কাজ। তারা রওনা হল বান্দরবানের উদ্দেশ্যে। তারা যখন বান্দরবান ঢুকল তখন জাবেদ লক্ষ্য করল পাহাড়ের উপর ১৩২ কিলোভোল্টের ট্রান্সমিশন লাইনগুলো সুন্দরভাবে দাঁড়িয়ে আছে। সে আরো লক্ষ্য করল দুটো টাওয়ার সম উচ্চতায় না হবার কারণে তারের স্যাগ বা ঝুলন অনেক বেশি। তার মনে প্রশ্ন জাগল এইক্ষেত্রে স্যাগের হিসেব কি সাধারণ সূত্র দিয়েই হবে? সে রহিমকে ব্যাপারটি জিজ্ঞাসা করল। কারণ রহিম ক্লাসের টপার ছাত্র। তখন রহিম জাবেদকে ব্যাপারটি বুঝিয়ে দিল। রহিমের পরামর্শটি আজ আপনাদের সাথে শেয়ার করব।

পাহাড়ি এলাকায় টাওয়ারের তারের স্যাগ নির্ণয়ের কৌশল

স্যাগ
স্যাগ

সাধারণত পাহাড়ি এলাকায় ওভারহেড লাইন টানার সময় সাপোর্ট অসমতলে অবস্থান করে। মনে করি, A এবং B দুটো টাওয়ার অসমতলে অবস্থিত। পরিবাহীর সর্বনিম্ন বিন্দু হচ্ছে O। মনে করি,

L = স্প্যান বা বিস্তার

h = দুটো সাপোর্টের মধ্যে উচ্চতার পার্থক্য

x1 = নিম্নতলে অবস্থিত সাপোর্ট হতে পরিবাহীর সর্বনিম্ন বিন্দু পর্যন্ত দূরত্ব

x2 = উচ্চতল বিশিষ্ট সাপোর্ট হতে O বিন্দু পর্যন্ত দূরত্ব

T = পরিবাহীর টান

w = একক দৈর্ঘ্যের পরিবাহীর ওজন

S1 = wx1^2/2T

এবং S2 = Wx2^2/2T

x1 + x2 = L ——————(1)

এখন, S2 – S1 = W/2T (x2^2 – x1^2) = W/2T(x1 + x2)(x2 – x1)

বা, S2 – S1 = W/2T (x2^2 – x1^2) = WL/2T(x2 – x1) যেহেতু x1 + x2 = L

কিন্তু S2 – S1 = h

সুতরাং, h = WL/2T(x2 – x1)

বা, (x2 – x1) = 2Th/WL ——————–(2)

(1) এবং (2) নং সমীকরণ সমাধান করে পাই,

x1 = L/2 – Th/WL

x2 = L/2 + Th/WL

পাহাড়ে স্যাগ
পাহাড়ে স্যাগ

স্যাগের হিসেব যখন কন্ডাক্টরের উপর কেবল বাতাসের বেগ বা ঝড়ের প্রভাব কাজ করে

আমরা জানি, তারের নিজস্ব ওজন উলম্বভাবে নিচের দিকে এবং বাতাসের চাপ আনুভূমিকভাবে তারের উপর ক্রিয়া করে।

মনে করি, তারের ব্যাস = Dm

প্রতি মিটার তারের নিজস্ব ওজন = W Kg

প্রতি মিটার তারের প্রজেক্টেড এরিয়ার উপর বাতাসের চাপ P = Ww kg/m^2

প্রতি মিটার তারের মোট ওজন = w1 kg

Ww = P x Dm x L

এবং w1 = sqrt(W^2 + Ww^2) এবং এই চাপ যদি উলম্বের সাথে নির্দিষ্ট কোণ করে অবস্থান করে এবং স্প্যান দৈর্ঘ্য যদি L মিটার হয়, তাহলে সর্বোচ্চ স্যাগ হবে = w(L/2)^2/2T = wL^2/8T meter

স্যাগের হিসেব যখন কন্ডাক্টরের উপর বরফ এবং ঝড় একই সাথে ক্রিয়া করে

ট্রান্সমিশন লাইনে শুধুমাত্র কন্ডাক্টরের ওজনই কাজ করে না বরং উহার উপর বরফ ও বাতাসের প্রভাব রয়েছে। সাধারণত শীতপ্রবণ দেশগুলো যেমন কানাডা, আমেরিকা, যুক্তরাষ্ট্রে এ প্রভাব বেশি লক্ষ্য করা যায়। বরফের কারণে কন্ডাক্টরের ওজন বৃদ্ধি পায় এবং স্যাগ ও বৃদ্ধি পায়। অপরদিকে বাতাসের কারণে কন্ডাক্টরের উলম্ব অবস্থান সরে যায়। তার মানে পরিবাহীর উপর বরফ এবং বাতাসের সম্মিলিত প্রভাব আছে। তাই স্যাগ হিসেব করার জন্য বরফ এবং বাতাসের যৌথ চাপকে হিসেবে আনা দরকার।

বরফযুক্ত লাইনে স্যাগ
বরফযুক্ত লাইনে স্যাগ

স্যাগের বিশ্লেষণ যখন কন্ডাক্টরের উপর বরফ এবং ঝড় একই সাথে ক্রিয়া করেঃ

ধরি, d = যা বরফের ঘনত্ব হিসেবে প্রকাশ করা হয়

P = বাতাসের চাপ

w = প্রতি একক মিটার কন্ডাক্টরের ওজন (কেজি)

wi = মোট ওজন প্রতি একক দৈর্ঘ্যে (কেজি)

wi = প্রতি একক মিটার কন্ডাক্টরের উপর বরফের ওজন (কেজি)

Ww = কন্ডাক্টরের উপর বাতাসের চাপ

wt = sqrt[(w+wi)^2 + Ww^2]

tanθ = Ww/w + wt বা, Cosθ = w+wi/wt

Sag = Wt x L^2/2T

আরো কিছু পোস্ট

পোল এবং টাওয়ার দুই ভাইয়ের মধ্যে তুলনামূলক আলোচনা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here