ইলেকট্রিক্যাল সুইচগিয়ার অ্যান্ড প্রোটেকশন বিষয়ে কিছু কমন প্রশ্ন ও উত্তর

12

সুইচগিয়ার বিভিন্ন ধরনের যন্ত্রের সমন্বয়ে গঠিত যেমনঃ ফিউজ, কানেকশন বিচ্ছিন্ন কারি সুইচ, সার্কিট ব্রেকার ইত্যাদি। এই সকল যন্ত্রাংশ ইলেকট্রিক্যাল সার্কিট কে সুইচিং, কন্ট্রোলিং ও রক্ষা করার জন্য ব্যবহার করা হয়। লাইনে যে কোন ধরনের ত্রুটি দেখা দিলে সুইচগিয়ার তাৎক্ষনিক সংযোগকে বিচ্ছিন্ন ঘটায়।

সুইচগিয়ার শ্রেণীবিভাগ

ভোল্টেজের উপর ভিত্তি করে সুইচগিয়ার মূলত দুই প্রকার

  1. এলটি গিয়ার (LT Gear)
  2. এইচটি গিয়ার (HT Gear)

HT Gear আবার ব্যবহারের উপর ভিত্তি করে দুই প্রকার

  1. ইনডোর গিয়ার (Indoor Gear)
  2. আউটডোর গিয়ার (Outdoor Gear)

যেসকল উপাদান নিয়ে সুইচগিয়ার গঠিত

সুইচগিয়ার প্রধান দুটি উপাধান হচ্ছে রিলে এবং সার্কিট ব্রেকার। সুইচগিয়ারের অন্যান্য উপাধানগুলো হলোঃ

  • বাসবার
  • মেজারিং ইনস্ট্রুমেন্ট
  • কন্ডাক্টর এবং ট্রিপিং ইনস্ট্রুমেন্ট
  • সিটি , পিটি।

সুইচগিয়ার সম্বন্ধে কিছু প্রশ্ন এবং উত্তর

  1. সার্কিট ব্রেকার কি?
  2. মিনিয়েচার সার্কিট ব্রেকার কি?
  3. এয়ার সার্কিট ব্রেকার কি?
  4. ফিউজ কি?
  5. ফিউজিং কারেন্ট কি?
  6. ফিউজ এর কাট অফ কারেন্ট কি?
  7. কারেন্ট রেটিং অফ ফিউজিং এলিমেন্ট কি?
  8. রীলে কি?
  9. বুখলজ রীলে কি?
  10. আইসোলেটর কি?
  11. আর্ক কি এবং আর্কিং ভোল্টেজ কি?
  12. লাইটনিং এরেস্টার কি?

এছাড়া অন্যান্য প্রশ্ন ও রয়েছে।

সার্কিট ব্রেকার কি?

সার্কিট ব্রেকার এমন একটি বৈদ্যুতিক সুইচিং ডিভাইস  যা ইলেকট্রিক্যাল সার্কিটকে সাপ্লাই হতে কানেকশন বা সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে। এটি ইলেকট্রিক্যাল সার্কিটকে নিয়ন্ত্রণ ও রক্ষা করার কাজ ও করে থাকে।

যখন কোন কারনে সার্কিটে ওভার লোড বা শর্ট সার্কিট দেখা দেয় তখন সার্কিট ব্রেকার স্বয়ংক্রিয়ভাবে ঐ ইলেকট্রিক্যাল সার্কিটকে সাপ্লাই হতে বিচ্ছিন্ন করে দেয়। সার্কিট ব্রেকার কাজ করতে পারে নো-লোড কন্ডিশনে, ফুল লোড কন্ডিশন এবং ত্রুটি যুক্ত কন্ডিশনে। আর সার্কিট ব্রেকার সুইচগিয়ার এর একটি অংশ।

সার্কিট ব্রেকার সম্বন্ধে বিস্তারিত পড়ুনঃ

সার্কিট ব্রেকার পর্ব-১ (সার্কিট ব্রেকার কি, কিভাবে কাজ করে, গঠন, প্রকারভেদ) পড়ুন

সার্কিট ব্রেকার পর্ব-২(ওয়্যারিং ডায়াগ্রাম, স্থাপনের নিয়ম, ব্যবহার ও প্রশ্ন-উত্তর)

মিনিয়েচার সার্কিট ব্রেকার কি?

এই সার্কিট ব্রেকার টি ব্যাপক হারে ব্যবহার করা হয়। আমাদের বাসা বাড়িতে আমরা এই ধরনের সার্কিট ব্রেকার ব্যবহার করে থাকি। MCB (এম সি বি) পূর্ণ নাম – Miniature Circuit Breaker (মিনিয়েচার সার্কিট ব্রেকার)

সুইচগিয়ার
মিনিয়েচার সার্কিট ব্রেকার

মিনিয়েচার শব্দের অর্থ ক্ষুদ্র। মিনিয়েচার সার্কিট ব্রেকার অল্প পরিমাণ কারেন্টে কাজ করে থাকে। আকারের দিক থেকে এই সার্কিটগুলো ছোট হয়ে থাকে।

এয়ার সার্কিট ব্রেকার কি?

এয়ার শব্দের বাংলা অর্থ বাতাস। এটি এমন একটি সার্কিট ব্রেকার যা আর্ক (অগ্নি) নির্বাপন এবং অপারেটিং (চালনা) স্বাভাবিক বায়ুমণ্ডলের বাতাসের চাপে করা হয় তাকে এয়ার সার্কিট ব্রেকার বলে।

সুইচগিয়ার
এয়ার সার্কিট ব্রেকার
ফিউজ কি?

ফিউজ হলো একটি ইলেকট্রিক্যাল নিরাপত্তা প্রদানকারী ডিভাইস। যখন সার্কিটে অতিরিক্ত পরিমাণ কারেন্ট প্রবাহ হয় তখন ফিউজ তার অপারেশন শুরু করে। ফিউজে একটি মেটাল তার বা তারের টুকরো।

সুইচগিয়ার
ফিউজ

যখন সার্কিটে অতিরিক্ত কারেন্ট প্রবাহ হয় তখন এই মেটাল তার টি গুলে যায় এবং সার্কিট কে রক্ষা করে। ফিউজ অপারেশন শেষ হলে এটিকে পুনরায় খুলে মেটাল তার লাগিয়ে খুব সহজে আবার ব্যবহার করা যায়।

ফিউজিং কারেন্ট কি?

আমরা জানি ফিউজের মধ্যে অতিরিক্ত কারেন্ট প্রবাহিত হলে ফিউজের তার গলে যায়। সর্বনিম্ম যে কারেন্ট প্রবাহিত হলে ফিউজের তার গলে যায় তাকে ফিউজিং কারেন্ট বলে। এই কারেন্টের মাণ ফিউজিং এলিমেন্ট কারেন্ট রেটিং এর বেশি হয়।

ফিউজ এর কাট-অফ কারেন্ট কি?

শর্ট সার্কিটের ফলে কারেন্টের সর্বোচ্চ যে মানে পৌছার পূর্বে ফিউজ তার গলে যায় তাকে সাধারণত ফিউজের কাট-অফ কারেন্ট বলে।

কারেন্ট রেটিং অফ ফিউজিং এলিমেন্ট কি?

ফিউজ তারে যখন অতিরিক্ত পরিমাণ কারেন্ট প্রবাহিত হয় তখন অনেক গরম হয়ে যায়। এই অতিরিক্ত গরম অবস্থায় ফিউজ তার গলে না গিয়ে ম্যাক্সিমাম যে পরিমাণ কারেন্ট বহন করতে পারে তাকে ঐ ফিউজের কারেন্ট রেটিং বলে।

রীলে কি?

রীলে একটি প্রতিরক্ষামূলক ডিভাইস যা পাওয়ার সিস্টেমে কোন পূর্বনির্ধারিত বৈদ্যুতিক অবস্থার পরিবর্তনে সাড়া দিয়ে সার্কিটকে ওপেন করে দেয়। সিস্টেমে কোন প্রকার ত্রুটি হওয়া মাত্র রীলে ক্ষতির হাত থেকে পুরো সিস্টেমকে রক্ষা করে।

রীলে নিয়ে বিস্তারিত পড়ুন

বুখলজ রীলে কি?

ট্রান্সফরমারে সাধারণত বিভিন্ন ত্রুটি থেকে নিরাপত্তা ও সতর্কীকরণ ব্যবস্থার জন্য ট্রান্সফরমার ট্যাংক ও কনজারভেটরের মাঝে পাইপে যে রীলে বসানো হয়ে থাকে সেটাই মূলত বুখলজ রীলে।

সুইচগিয়ার
বুখলজ রীলে

ওয়েল কুলিং ট্রান্সফরমারে এই রীলে ব্যবহার করা হয়। এই রীলে তখনি কাজ করবে যখন অতিরিক্ত কারেন্ট হতে সৃষ্ট উত্তাপে ট্রান্সফরমার ট্যাংকে গ্যাসের সৃষ্টি হবে।

আইসোলেটর কি?

Isolator (আইসোলেটর) শব্দের বাংলা অর্থ বিচ্ছিন্ন করা। আইসোলেটর হলো এক প্রকার ম্যানুয়াল মেকানিক্যাল সুইচ যেটি দিয়ে সার্কিটের একটি অংশকে আলাদা করা হয় প্রয়োজন অনুযায়ী।

সুইচগিয়ার
আইসোলেটর

বৈদ্যুতিক সাব-ষ্টেশনে বিভিন্ন যন্ত্রপাতি যেমনঃ ট্রান্সফরমারকে নো-লোড বা সামান্য লোড অবস্থায় লাইন হতে বিচ্ছিন্ন করার জন্য আইসোলেটর ব্যবহার করা হয়। এটি সাধারণত অফ-লাইনে অপারেটিং করা হয়।

আর্ক ও আর্কিং ভোল্টেজ কি?

ইলেকট্রিক আর্ক হচ্ছে এক ধরনের ইলেকট্রিক ডিসচার্জ যা দুটি ইলেক্ট্রোডের মধ্যে সৃষ্টি হয় ও ক্ষুদ্র স্ফুলিঙ্গ দেখা দেয়।

আর্কিং পিরিয়ডে সার্কিট ব্রেকারে কন্টাক্ট দুটির আড়াআড়িতে যে ভোল্টেজ পাওয়া যায় তাকেই মূলত আর্কিং ভোল্টেজ বলে।

লাইটনিং বা বজ্রপাত কাকে বলে?

মেঘ এবং আর্থের মধ্যে অথবা মেঘ ও মেঘের মধ্যে অথবা একই মেঘের চার্জ কেন্দ্রের মধ্যে বৈদ্যুতিক ডিসচার্জকে লাইটনিং বা বজ্রপাত বলে।

লাইটনিং এরেস্টার কি?

লাইটনিং শব্দের অর্থ বজ্র এবং এরেস্টার শব্দের বাংলা অর্থ যাহা আকর্ষণ করে। লাইটনিং এরেস্টার অর্থ বজ্র কে আকর্ষণ করবে।

লাইটনিং এরেস্টার হলো এক ধরনের প্রোটেকটিভ ডিভাইস যা পাওয়ার সিস্টেমে হাই ভোল্টেজকে সরাসরি মাটিতে প্রেরণ করে থাকে।

সার্জ ভোল্টেজ কি?

পাওয়ার সিস্টেমে হঠাৎ করে খুব অল্প সময়ের জন্য অস্বাভাবিক ভোল্টেজ বৃদ্ধিকে সার্জ ভোল্টেজ বলে। একে ট্রানজিয়েন্ট ভোল্টেজও বলে।

সার্জ ডাইভারটার কাকে বলে?

সার্জ ডাইভারটার এমন এক ধরনের প্রটেক্টিভ ডিভাইস যা পাওয়ার সিস্টেমে হাই ভোল্টেজ সার্জকে সরাসরি পৃথিবীর মাটিতে প্রেরন করে। একে লাইটনিং এরেস্টারও বলে।

সাব-স্টেশন কাকে বলে?

পাওয়ার সিস্টেম ব্যবস্থায় সাব-স্টেশন এমন এক কেন্দ্র যেখানে এমন সব সরঞ্জামাদির ব্যবস্থাপনার মাধ্যমে বিভিন্ন প্রকার বৈদ্যুতিক বৈশিষ্ট্য যেমন- ভোল্টেজ, এসি/ডিসি কনভার্সন, ফ্রিকুয়েন্সি, পাওয়ার ফ্যাক্টর ইত্যাদির পরিবর্তনে সাহায্য করে, এ ধরনের কেন্দ্রকে সাব-স্টেশন বা বিদ্যুৎ উপকেন্দ্র বলে।

পাওয়ার লাইন ক্যারিয়ার (PLCC) কাকে বলে?

যে লাইনের মাধ্যমে পাওয়ার স্টেশন, সাব-স্টেশন, রিসিভিং স্টেশনে নিজস্ব জরুরী যোগাযোগ ব্যবস্থাপনা টেলিফোনের মাধ্যমে সম্পন্ন করা হয় তাকে পাওয়ার লাইন ক্যারিয়ার (PLCC) বলে।

আর্থিং সুইস কি?

ট্রান্সমিশন লাইন রক্ষণাবেক্ষণের সময় লাইনে বিদ্যমান চার্জিং কারেন্টকে মাটিতে পাঠানোর জন্য যে সুইস ব্যবহৃত হয় সেটি আর্থিং সুইস (ES) নামে পরিচিত। আগে আইসোলেটর দিয়ে সার্কিট ডিসকানেক্ট করে আর্থ সুইস দ্বারা লাইনকে আর্থের সাথে সংযোগ করা হয়।

ওয়েভ ট্রাপ কি?

সাব-স্টেশনে ব্যবহৃত ক্যারিয়ার সরঞ্জামাদির মধ্যে ওয়েভ ট্রাপ অন্যতম একটি ডিভাইস, যার মাধ্যমে ট্রান্সমিশন লাইনের ওয়েভকে ফিল্টার করা হয়। পাওয়ার লাইনের মাধ্যমেই কমুনিকেশন ফ্রিকুয়েন্সিও পাঠানো হয়, পরবর্তীতে এই ওয়েভ ট্রাপ দিয়ে কমিউনিকেশন ফ্রিকুয়েন্সিকে আলাদা করে শব্দ শক্তিতে রুপান্তর করে টেলিফোন বা যোগাযোগ ব্যবস্থা সম্পন্ন করা হয়।

সুইসিং ইফেক্ট কি?

সুইসিং অপারেশনের সময় পাওয়ার সিস্টেমে ওভার ভোল্টেজ উৎপন্ন হওয়ার প্রক্রিয়াকে সুইসিং ইফেক্ট বলে।

12 COMMENTS

    • 🙂 ধন্যবাদ ভাই।

  1. khub valo aponi bhaiya amader jonno aponi to sundor sundor lekhar jonno

    • ধন্যবাদ ভাইয়া। সাথেই থাকুন। চেষ্টা করছি আরো ভালো তথ্য আপনাদের সামনে উপস্থাপন করতে।

  2. Comment:thanks a lot of you!

  3. md tanberul islam

    u r great bro..
    awsome post

  4. ভাই MES এর ভাইভা কি টাইপের প্রশ্ন করতে পারে জানালে উপকৃত হতাম…….. ধন্যবাদ ভাইয়া

  5. Md.Kawsar Hamid

    very useful Brother. Many many thanks for this information

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here