ইন্ড্রাস্ট্রিয়াল পাওয়ার সিস্টেম নিয়ে সহজ এবং সংক্ষিপ্ত আলোচনা

ইন্ড্রাস্ট্রিতে পণ্যসামগ্রী তৈরির জন্য বিদ্যুৎ শক্তির বিকল্প নেই। ইন্ড্রাস্ট্রির যাবতীয় মেশিনগুলোর মূল চালিকাশক্তি হল বিদ্যুৎ। তাই এই বিদ্যুৎ শক্তিকে পরিচালনা, নিয়ন্ত্রণ এবং রক্ষণাবেক্ষণের জন্য সব ধরনের ইন্ড্রাস্ট্রিতে আলাদা করে একটি ইলেকট্রিক্যাল ডিপার্টমেন্ট থাকে। এই ডিপার্টমেন্টে নিয়োজিত বিদ্যুৎ প্রকৌশলীগণ ইলেকট্রিক্যাল বিভিন্ন ইকুইপমেন্টকে মনিটরিং করেন এবং কোন সমস্যা দেখা দিলে ট্রাবলশুটিং করে সমাধানের পথ বের করেন। আজকে আমরা একটি ইন্ড্রাস্ট্রিয়াল পাওয়ার সিস্টেম কিভাবে সাজানো হয় সেই ব্যাপারে আলোচনা জমিয়ে তুলব।

ইন্ড্রাস্ট্রিগুলো সাধারণত বিদ্যুৎ বিক্রয় এবং বিতরণ কোম্পানিগুলোর HT গ্রাহক। এখন নিশ্চয় মনে মনে প্রশ্ন করছেন যে, HT গ্রাহক আবার কি?

HT গ্রাহক

সাধারণত বিদ্যুৎ বিক্রয় এবং বিতরণ কোম্পানিগুলো যেমন পিডিবি, ডিপিডিসি, ডেস্কো, নেস্কো, ওজোপাডিকো, পল্লীবিদ্যুৎ সমিতি থেকে যারা ১১ কিলোভোল্ট লাইন সরাসরি কনজিউম করে তাদেরকে বলা হয় HT গ্রাহক।

তবে কিছু কিছু ইন্ড্রাস্ট্রি আবার সরাসরি গ্রীড থেকেও ২৩০/১৩২ কিলভোল্ট লাইন নিয়ে থাকে। যেমন বসুন্ধরা গ্রুপ পাওয়ার গ্রীড থেকে ২৩০ কেভি, বি এস আর এম, আবুল খায়ের এবং কবির স্টীল মিল ১৩২ কিলোভোল্ট লাইন সরাসরি নিয়ে থাকে। সাধারণত স্টীল, গ্লাস ফ্যাক্টরিগুলোতে রড তৈরির ফার্নেসে প্রচুর পরিমাণে ভোল্টেজ দরকার পড়ে।

তাই তারা সরাসরি গ্রীড থেকেই এত পরিমাণ ভোল্টেজ গ্রহণ করে। সাধারণত এগুলোকে Turnkey transmission line বলে। অন্য একটি আর্টিকেলে এ ব্যাপারে বিস্তারিত আলাপ হবে ইনশাল্লাহ।

High Tension/HT panel

এখন তাহলে প্রশ্ন হল এই ১১ কেভি তো আর মেশিনগুলোতে সরাসরি ব্যবহার হবেনা। কারণ ইন্ড্রাস্ট্রিতে ব্যবহৃত মেশিনগুলো থ্রি-ফেজ অথবা সিংগেল ফেজ। তাই ইন্ড্রাস্ট্রিতে ২২০-৪০০ ভোল্ট দরকার। তাই ১১ কেভি ভোল্টেজকে একটি স্টেপ ডাউন ট্রান্সফরমারের সাহায্যে ৩৮০/৪০০/৪৪০ ভোল্ট করে নেয়া হয়। আর এই ট্রান্সফরমার ইনডোর সাবস্টেশনে থাকে। এই ট্রান্সফরমারের HT সাপ্লাই সাইডকে টার্ন অন করতে এল বি এস (লোড ব্রেক সুইচ) বা ভি সি বি (ভ্যাকুয়াম সার্কিট ব্রেকার) প্যানেল ব্যবহার করা হয়। একে HT প্যানেলও বলা হয়ে থাকে।

ইন্ড্রাস্ট্রিয়াল পাওয়ার সিস্টেম এর HT প্যানেল
HT প্যানেল

Low Tension/LT panel

এবার লোড সাইডে প্রাপ্ত ৩৮০-৪৪০ ভোল্টকে পাঠানো হবে ইন্ড্রাস্ট্রির আরেক প্যানেলে। যার নাম এল টি প্যানেল বা লো টেনশন প্যানেল। সাধারণত বাসবার ট্রাংকিং সিস্টেমের সাহায্যে এল টি ভোল্টেজকে প্যানেল চালান করা যায়। ক্যাবল দিয়েও এই কাজ করা সম্ভব। তবে মিতব্যয়ীতার কথা চিন্তা করলে বাসবারই উত্তম। এই এল টি প্যানেলেও সার্কিট ব্রেকার, রিলে সুসজ্জিত থাকে। এল টি প্যানেলে সাধারণত ৩৮০-৪৪০ ভোল্ট ইনকামিং লাইনের জন্য এয়ার সার্কিট ব্রেকার বা এ সি বি থাকে যা ট্রান্সফরমার থেকে আগত ৪৪০ ভোল্টের লাইনকে সুইচ আপ করে থাকে।

এই Air Circuit breaker এর আউটপুট আবার পুনরায় বাসবারের মাধ্যমে Distribution Panel এর ব্রেকারে যায়। এই Distribution Panel এ আবার MCCB (Molded Case Circuit Breaker) ব্যবহার করা হয় যার আউটপুট ইন্ডাস্ট্রির বিভিন্ন লোডে গিয়ে পৌছায়।

একটি ইন্ডাস্ট্রিতে অনেকগুলো ডিপার্টমেন্ট থাকতে পারে। প্রতিটি ডিপার্টমেন্ট একটি আলাদা আলাদা LT Panel / switch-yard এর আওতায় থাকে। এছাড়াও ভোল্টেজ, কারেন্ট, পাওয়ার ফ্যাক্টর মনিটর করার জন্য এখানে এমিটার, ভোল্টমিটার এবং পিএফআই মিটার থাকে।

SDB/Sub distribution board

এবার চলুন Sub distribution/SDB board নিয়ে আলোচনা করা যাক। তার আগে আপনাদের একটি মজার উদাহরণ দিতে চাই।

  • আমরা সবাই জানি, একজন কর্মকর্তার অধীনে অনেক কর্মচারী কাজ করেন।
  • তেমনিভাবে একটি সেন্ট্রাল distribution board এর অধীনে অনেকগুলো Sub distribution board (SDB) থাকে। এই SDB থেকেই মূলত বিভিন্ন ফ্লোরের লোডে ওয়্যার কানেকশন দেয়া হয়।
  • এই প্যানেলে একটি MCCB/Molded Case Circuit Breaker থাকে যেখানে তিনটি লাইন সেন্ট্রাল DB/Distribution Board থেকে প্রবেশ করে থাকে।
  • তারপর এই ব্রেকারের তিনটি outgoing line চারটি বাসবারে কানেকশন দেয়া হয়ে থাকে।
  • এখন অনেকেই বলবে যে, তিনটা না হয় বুঝলাম থ্রি ফেজ লাইনের জন্য আর বাকিটা কোনটা? বাকিটা হল নিউট্রাল লাইনের জন্য।
  • এই প্যানেলে SPCB (Single pole Circuit breaker) রয়েছে। বাসবারের তিনটি ফেজ লাইন এই ব্রেকারগুলার ইনপুটে যায়। আর তার আউটপুট যাবে বিভিন্ন ফ্লোরের লোডে।

এবার অনেকে প্রশ্ন করবেন যে, তাহলে সিংগেল ফেজের জন্য কিভাবে কানেকশন দিব?

এটাও খুব সহজ। প্যানেলের একটা ফেজ লাইন আর একটা নিউট্রাল ক্যাবল ল্যাগ-এর মাধ্যমে ব্রেকারে পুরে দিলেই খেল খতম। তারপর এখানে সবুজ কালারের একটি ক্যাবল থাকে। এটা হল আর্থিং ক্যাবল। লিকেজ কারেন্টের দরুণ মেটাল বডি শর্ট হয়ে যেন দূর্ঘটনা না ঘটে সেই জন্য এটা ব্যবহার করা হয়। এই প্যানেলে TPCB (Triple pole Circuit breaker)ও ব্যবহার করা হয়। এটা এসি বা কোন heavy load এর জন্য স্পেশালি ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

আর এভাবেই মূলত একটি ফ্যাক্টরির পাওয়ার সিস্টেম ডিজাইন করা থাকে। নবীন ইঞ্জিনিয়ারদের অনেকের মাঝেই এ ব্যাপারে অনেক কৌতূহল থাকে। এই আর্টিকেলের মাধ্যমে সেই কৌতূহল আজ নিবৃত হয়েছে বলে আশা করি।

আরো কিছু পোস্ট

ইন্ডাস্ট্রিতে ব্যবহৃত বিভিন্ন ধরনের সুইচের সাথে পরিচিতি

বাসবার হিসাব – HT & LT সেকশনে বাসবার ক্যালকুলেশন এবং সিলেকশন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here