সংক্ষিপ্ত প্রশ্নোত্তর পর্ব-৩ । ইলেকট্রিক্যাল সার্কিট

0
324

EEE Job Preparation

সংক্ষিপ্ত প্রশ্নোত্তর পর্ব-৩

টপিকঃ ইলেকট্রিক্যাল সার্কিট

প্রশ্ন ২১ঃ বাসা বাড়িতে কোন ধরনের সার্কিট ব্যবহার করা হয় এবং কেনো?

উত্তরঃ বাসা বাড়িতে সাধারণত প্যারালাল সার্কিট ব্যবহার করা হয় কারণ প্যারালাল সার্কিটের প্রতিটি লোডই সরবরাহকৃত ভোল্টেজের সমান ভোল্টেজ পায়।

প্রশ্ন ২২ঃ সিরিজ সার্কিটের অসুবিধা কি?

উত্তরঃ সিরিজ সার্কিটের অসুবিধাগুলো হলােঃ
১. প্রতিটি লােডকে আলাদা আলাদাভাবে নিয়ন্ত্রন করা যায় না।
২. যেকোন একটি লােড নষ্ট হয়ে গেলে অবশিষ্ট সকল লােডগুলোও অকেঁজো হয়ে পড়ে।
৩. প্রতিটি লােডের আড়াআড়িতে ভােল্টেজ ড্রপ হয়, যার ফলে সকল লােড সমান ভাবে কাজ করতে পারে না।

প্রশ্ন ২৩ঃ প্যারালাল সার্কিটের কয়েকটি সুবিধা বলুন।

উত্তরঃ প্যারালাল সার্কিটের কয়েকটি সুবিধা হলোঃ

১. প্রতিটি লােডকে আলাদা আলাদা সুইচ দ্বারা নিয়ন্ত্রন করা যায়।
২. সার্কিটে একটি লোড নষ্ট হয়ে গেলে অন্যান্য লোডগুলোর উপর কোন প্রভাব পড়েনা অর্থাৎ অন্যান্য লোডগুলো ঠিকভাবে কাজ করতে পারে।
৩. প্রতিটি লোডের আড়াআড়িতে সমান ভোল্টেজ প্রয়োগ হয় যার ফলে সকল লোড সমানভাবে কাজ করতে পারে।

প্রশ্ন ২৪ঃ Current Source কি?

উত্তরঃ Current Source এমন একটি উৎস যার লোড বা রেজিস্ট্যান্স পরিবর্তন হলেও ওই উৎস নির্দিষ্ট পরিমান কারেন্টই সরবরাহ করতে থাকে।

প্রশ্ন ২৫ঃ Voltage Source কি?

উত্তরঃ Current Source-এর ন্যায় Voltage Source এমন একটি উৎস যার লোড বা রেজিস্ট্যান্স পরিবর্তন হলেও ওই উৎস নির্দিষ্ট পরিমানই ভোল্টেজ সরবরাহ করতে থাকে।

[সোর্স ট্রান্সফরমেশন সম্বন্ধে পড়তে ক্লিক করুন]

প্রশ্ন ২৬ঃ লোড কি?

উত্তরঃ যে সকল ডিভাইস ব্যাটারি, জেনারেটর বা কোন সোর্স থেকে পাওয়ার Consume করে প্রত্যাশিত কার্যাবলী সম্পাদন করে থাকে তাদেরকে লোড বলে।
মূলত সোর্সের জন্য লোড এক ধরনের বোঝা।

[কোনটা কি ধরনের লোড তা কিভাবে বুঝবো? জানতে হলে ক্লিক করুন]

প্রশ্ন ২৭ঃ ভোল্ট মিটার ও এমিটারকে সিরিজ নাকি প্যারালাল সংযোগ দেওয়া হয় ?

উত্তরঃ ভোল্ট মিটারকে প্যারালাল ও এমিটারকে সিরিজে সংযোগ দেওয়া হয়।

প্রশ্ন ২৮ঃ ভোল্ট মিটারকে প্যারালাল ও এমিটারকে সিরিজে সংযোগ দেওয়া হয় কেনো?

উত্তরঃ ভোল্ট মিটারঃ ভোল্ট মিটারের মাধ্যমে কোনো লাইনের বা লোডের ভোল্টেজ পরিমাপ করা হয়। লোডের সাথে এটি প্যারালালে সংযোগ করার কারণ হচ্ছে এর Internal Resistance অনেক বেশি।

এমিটারঃ এমিটার দ্বারা কোন বৈদ্যুতিক লাইনের বা লোডের মধ্য দিয়ে প্রবাহিত কারেন্টকে মাপা হয়। এটি লোডের সাথে সিরিজে সংযোগ দিতে হয় কারণ এর Internal Resistance আবার খুবই কম অথবা শূন্য হয়।

প্রশ্ন ২৯ঃ ওহমিক রেজিস্ট্যান্স বলতে কি বুঝায়?

উত্তরঃ ওহমিক রেজিস্ট্যান্সঃ কোন পরিবাহী ডিসি কারেন্ট প্রবাহ করার সময় যে বাধা দিয়ে থাকে তাকে ওহমিক রেজিস্ট্যান্স বলে।
ওহমিক রেজিস্ট্যান্সকে ডিসি রেজিস্ট্যান্সও বলা হয়।

প্রশ্ন ৩০ এসি রেজিস্ট্যান্স কাকে বলে?

উত্তরঃ এসি রেজিস্ট্যান্সঃ এসি সার্কিটে কোন পরিবাহীর ওহমিক রেজিস্ট্যান্স, স্কিন ইফেক্ট, এডি কারেন্ট লস ও ডাই ইলেক্ট্রিক সম্মিলিত বাধাকে এসি রেজিস্ট্যান্স বলে।
এসি রেজিস্ট্যান্সকে কার্যকরী রেজিস্ট্যান্স বলা হয়ে থাকে।

ইলেকট্রিক্যাল সার্কিট ভাইভা প্রস্তুতি-১

ইলেকট্রিক্যাল সার্কিট ভাইভা প্রস্তুতি-২

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here