ফেসবুকে ফেইক আইডিধারী অপরাধীকে পুলিশ কিভাবে ট্রেস করে?

0
1111

সান্ত দশম শ্রেণীর ছাত্র। তথ্য এবং প্রযুক্তি বিষয়টির উপর তার বেশ আগ্রহ। সে কম্পিউটারের বিভিন্ন সফটওয়্যারের কাজ, গ্রাফিক্স ডিজাইন, এনিমিটিভ ভিডিও এই টপিক গুলোর উপর তার অনেক কৌতূহল। সান্তের এক মামা বাংলাদেশ সি আই ডি এর আই সি টি সেলে কর্মরত আছেন। সান্তের মামা বাসায় একদিন বেড়াতে আসল। সান্ত তথ্য প্রযুক্তি নিয়ে তার মামার সাথে গল্প করতেছিল। সে তার মামাকে প্রশ্ন করল, “ফেইক আইডি থেকে যারা কোন ক্রাইম করে যেমন মেয়েদের উত্যক্ত করা, কাউকে হুমকি দেয়া ঐসব ক্রিমিনালকে পুলিশ কিভাবে সনাক্ত করে?” সান্তের মামা ভাগ্নের এরকম প্রশ্নে মোহিত হল এবং খুব সুন্দর করে বুঝিয়ে দিলেন। আজ আমরাও সান্তের সাথে সাথে এই আকর্ষণীয় ব্যাপারটি জেনে নিব। চলুন শুরু করা যাক।

ফেসবুকে ফেইক আইডিধারী ক্রিমিনালকে পুলিশ কিভাবে সনাক্ত করে?

আইপি এড্রেস

নেটওয়ার্কিং কোর্সে আমরা অনেকেই এই শব্দটির সাথে পরিচিত হয়েছি। IP address এ IP এর পূর্ণরুপ হল ইন্টারনেট প্রটোকল। এবার খুব সহজ ভাষায় আইপি এড্রেসের সংজ্ঞাটা আপনাদের নিকট তুলে ধরতে চাই। আই পি এড্রেস হল ৪ বাইট বা ৩২ বিট বিশিষ্ট একটি বাইনারি এড্রেস যা আপনার ব্যবহৃত হার্ডওয়ার এবং সার্ভারের সাথে নেটওয়ার্ক ইন্টারফেসিং এ সাহায্য করে। এই আই পি এড্রেসের সাহায্যে নেটওয়ার্ক হোস্ট এবং তার হার্ডওয়্যারের অবস্থান খুব সহজেই সনাক্ত করা যায়। একটি আই পি এড্রেসের নমুনা নিচে দেয়া হলঃ

101.20.5.6

DNS সার্ভার

এখন প্রশ্ন হতে পারে, আমরা ইন্টারনেট ব্রাউজিং এর সময় ত আইপি এড্রেস লিখি না। আমরা একটি নামের পরে ডট কম ইউজ করে তারপরে ওয়েব সারফেসে প্রবেশ করি। এটা কিভাবে সম্ভব?

জি, আপনারা ঠিক ই ভাবছেন। আমরা যে ফেসবুক, টুইটার, গুগল, ইউটিউব ব্যবহার করি সেখানে নামের পরে ডট কম এক্সটেনশন ইউজ করলেই হয়ে যায়। আই পি লিখতে হয়না।

তাহলে আই পি এড্রেস কে লিখে দেয়?

আমাদের ওয়েব এড্রেসের নামটি ডি এন এস বা ডোমেইন নেইম সার্ভারের কাছে একটি সুনির্দিষ্ট আই পি এর সাথে লিংকড আপ করা থাকে। ইউজার ওয়েব এড্রেস লিখলেই সেটি আই পি তে অটোমেটিক ট্রান্সলেটেড হয়ে যায়। মূলত ইউজারের ভোগান্তি কমাতেই এই প্রযুক্তি ইমপ্লিম্যান্ট করা হয়েছে। কারণ এতগুলো আই পি এড্রেস মনে রাখার চেয়েও ওয়েব এড্রেসের নাম মনে রাখা সহজ।

ধরন

আই পি এড্রেস মূলত দুই ধরনের।

  • ডাইনামিক আই পি
  • স্ট্যাটিক আই পি

নাম শুনেই বুঝা যায়, একটাতে সার্ভারের আই পি নির্দিষ্ট সময় পর পর পরিবর্তন হবে আরেকটায় চেইঞ্জ হবেনা। সিকিউরিটির উদ্দেশ্যেই মূলত ডায়নামিক আই পি ব্যবহার করা হয়। ধরন নিয়ে বেশি টাইম কাটাব না। এবার আসেন মূল প্রসংগে।

ফেইক আইডিধারী অপরাধীকে সনাক্তকরণ

এতক্ষণে নিশ্চয়ই আপনারা বুঝে গেছেন যে কোন প্রক্রিয়ায় ফেসবুকের ফেইক আইডিধারী অপরাধীকে পুলিশ এরেস্ট করতে পারে। এখনো হয়ত অনেকের ঘটকা থাকতে পারে যে, আমার নাম পরিচয় কিছুই নেই কিন্তু কিভাবে পুলিশ এসব জানবে?

আপনি যদি আপনার বাসগৃহে কোন ডিভাইস ব্যবহার করে নেটওয়ার্কে এক্সিস করেন তাহলেই আপনি খাবেন ধরা। হ্যা যদি আপনি এই ডিভাইসটি নিয়ে অন্য কোন এরিয়ার নেটওয়ার্ক কানেক্টিভিটি ইউজ করে কুকর্মটি করেন তাহলে আপনার বাসগৃহে পুলিশ যেতে পারবেনা। ধরুন, আপনি আপনার বন্ধুর বাসার ওয়াইফাই এবং বন্ধুর পিসি ইউজ করে কাজটি করলেন। তাহলে আপনার বন্ধু ধরা খাবে। বেচারা না জেনেই ফেসে যাবে।

যদি প্রক্সি সার্ভার বা ভি পি এন ইউজ করা হয় তাহলে কি অপরাধীকে ধরা যাবে?

অনেকের ভূল ধারণা থাকে যে, প্রক্সি সার্ভার বা ভি পি এন ইউজ করলে হয়তো পুলিশ অপরাধীকে সনাক্ত করতে পারবেনা। ভি পি এন ব্যবহার করলেও পুলিশ ক্রিমিনালের কাছে পৌছে যাবে। যদিও প্রক্রিয়াটি একটু জটিল। আপনি ভি পি এন সার্ভারে ত আর হুট করে ঢুকেন নাই। নিশ্চয়ই আপনি লোকাল নেটওয়ার্ক বা আপনার আই এস পি এর মধ্য দিয়ে বাউন্স করে গিয়েছেন। ভি পি এন সার্ভারের সাথে যোগাযোগ করলেই এই সিউডো বা ছদ্মবেশী আইপিধারী ব্যক্তিকে খুজে পাওয়া কঠিন কিছু নয়। যদিও স্পেশাল কেইস না হলে এই প্রসেসে পুলিশ নাও যেতে পারে।

উপরের আলোচনা মূলত আমি আপনাদের আই সি টি ব্যাসিক জ্ঞান বাড়ানোর নিমিত্তেই করেছি। এইসব টেকনিক ভাল কাজে ব্যবহার করাটা আমাদের উচিত। এটাকে কেউ অপব্যবহার করলে ভোল্টেজ ল্যাব কর্তৃপক্ষ কোনভাবেই দায়ী থাকবেনা।

আরো কিছু আর্টিকেল

বিভিন্ন সিম অপারেটর কিভাবে সেলুলার নেটওয়ার্ক ডিজাইন করে পড়ুন

পুলিশ কিভাবে মোবাইল ফোন ট্র‍্যাকিং করে অপরাধীকে ধরে?

রেলওয়ে সিগন্যালিং সিস্টেম কিভাবে কাজ করে? | Bangladesh Railway

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here