হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্টের কার্যপদ্ধতি

হাইড্রোইলেকট্রিক-পাওয়ার-প্ল্যান্টের-কার্যপদ্ধতিdf

হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্ট এমন এক প্রকার বিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্র, যেখানে খরস্রোতা নদীতে বাঁধ সৃষ্টি করে পানি শক্তিকে কাজে লাগিয়ে বিদ্যুৎ শক্তি উৎপাদন করা হয়। ধাবমান পানির স্রোত, জোয়ার ভাটায় পানি প্রবাহ, সমুদ্র তরঙ্গ ইত্যাদি পানি শক্তিকে কাজে লাগিয়ে ওয়াটার টারবাইনকে ঘুরানাে হয়, ফলে ওয়াটার টারবাইনের সাথে সংযুক্ত বৈদ্যুতিক জেনারেটর তখন ঘূর্ণন গতিকে বিদ্যুৎ শক্তিতে রুপান্তর করে। মূলত এভাবে একটি হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্টে বিদ্যুৎ উৎপাদন করা হলেও সম্পূর্ণ প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন করতে আনুষাঙ্গিক অনেক কিছু করতে হয়। নিচের চিত্রে একটি হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্টের schematic arrangement বা কার্যপদ্ধতি চিত্রের সাহায্যে দেখানো হলোঃ

হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্টের কার্যপদ্ধতি

খরস্রোতা নদীতে বাঁধ দেবার পর Reservoir থেকে পানিকে Water Channel (পানির নালি) অথবা পেনস্টকের (Penstock) মধ্য দিয়ে ওয়াটার টারবাইনে পাঠানো হলে পানির ধাক্কায় ওয়াটার টারবাইন ঘুরতে শুরু করে। হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্টে বাঁধে পানির চাপ নিয়ন্ত্রণ করার জন্য সাধারণত পেনস্টক লাইনে স্লুইস গেট (Sluice Gate), গেট ভালভ (Gate Valve), গভর্নর (Governor), চেক ভালব (Check Valve) ইত্যাদি ব্যবহার করা হয়।

পেনস্টক ক্রমান্বয়ে ঢালু হওয়ায় এবং বাঁধে পানির উচ্চতা বেশি থাকায় এর মধ্য দিয়ে প্রচণ্ড বেগে পানি প্রবাহিত হতে পারে। প্ল্যান্ট চলাকালে পেনস্টকের মধ্য দিয়ে পানির জেট তীব্র বেগে ওয়াটার টারবাইনের ব্লেড অথবা বাকা আকৃতির ভেন (Blade বা Vane) -এর উপর যেয়ে আঘাত করে, ফলে ওয়াটার টারবাইন প্রচণ্ড গতিতে ঘুরতে থাকে। যার কারণে পানি শক্তি যান্ত্রিক শক্তিতে (Mechanical Energy) রূপান্তরিত হয়ে ওয়াটার টারবাইনের সঙ্গে যুক্ত বৈদ্যুতিক জেনারেটর চালিত করে যান্ত্রিক শক্তিকে আবার বৈদ্যুতিক শক্তিতে রূপান্তরিত করে।

এক্ষেত্রে ওয়াটার টারবাইনের শ্যাফটের সঙ্গে উপরের দিকে বৈদ্যুতিক জেনারেটর এবং নিচের দিকে একই শ্যাফটের সঙ্গে পাম্পের সংযােগ করা থাকে। যার ফলে ওয়াটার টারবাইন যখন ঘুরতে শুরু করে তখন জেনারেটর চালিত হয়ে বিদ্যুৎ শক্তি উৎপন্ন হতে থাকে।

যার ফলে একদিকে যখন পানি শক্তি যান্ত্রিক শক্তিতে (Mechanical Energy) রূপান্তরিত হয়ে ওয়াটার টারবাইনের সঙ্গে যুক্ত বৈদ্যুতিক জেনারেটর চালু করে তখন অন্যদিকে যান্ত্রিক শক্তি বৈদ্যুতিক শক্তিতে রূপান্তরিত হয়। এরপর এই বৈদ্যুতিক শক্তিকে ট্রান্সফর্মার দ্বারা প্রয়োজন মতো স্টেপ আপ করে ট্রান্সমিশন লাইনে পাঠানো হয়।

কোনাে কোনাে হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্টে ওয়াটার টারবাইন হতে বিতাড়িত পানি একটি বাঁধের সাহায্যে জমা করে রাখা হয়। পরবর্তীতে সেই পানির চাপকে কাজে লাগিয়ে কম ক্ষমতা সম্পন্ন টারবাইন চালিয়ে সংযুক্ত জেনারেটরের মাধ্যমে বিদ্যুৎ শক্তি উৎপন্ন করে বিদ্যুতের বাড়তি চাহিদা মিটানাে হয়।

হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্ট সম্বন্ধে অন্যান্য লেখাসমূহঃ

হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্টের সকল কম্পোনেন্ট বা উপাদান সম্বন্ধে জানতে ক্লিক করুন।

কাপলান টারবাইন সম্বন্ধে আলোচনা।
ফ্রান্সিস টারবাইন সম্বন্ধে আলোচনা।
পেল্টন টারবাইন সম্বন্ধে আলোচনা।
হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্টের সকল কম্পোনেন্ট বা উপাদান।
পাওয়ার প্ল্যান্টঃ সংজ্ঞা, প্রকারভেদ ও কার্যপদ্ধতি
পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ইতিহাস ও সংক্ষিপ্ত আলোচনা
হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্টের সুবিধা-অসুবিধা
হাইড্রোইলেকট্রিক পাওয়ার প্ল্যান্ট প্রকারভেদ ও বিস্তারিত আলোচনা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here